Header Ads

জেলসিমিয়াম (Gelsemium) [ হরিদ্রবর্ণ জেসমিন ফল ]

জেলসিমিয়াম (Gelsemium) [ হরিদ্রবর্ণ জেসমিন ফল ]

জেলসিমিয়াম (Gelsemium) [ হরিদ্রবর্ণ জেসমিন ফল ]
জেলসিমিয়াম (Gelsemium) [ হরিদ্রবর্ণ জেসমিন ফল ]
শিশু, যুবকে এবং বিশেষতঃ স্নায়বিক প্রকৃতি হিষ্টিরিয়াপ্রবণ স্ত্রীলোকদিগের পক্ষে উপযোগী (ক্রোকাস, ইগ্নে)। 

সমগ্র পেশীমন্ডলের সম্পূর্ণ শিথিলতা ও অবসন্নতা, তৎসহ সমগ্র গতিবিধায়ক স্নায়ুমন্ডলের পক্ষাঘাত। 

কৃত্রিম মৈথুনে আসক্ত স্ত্রী ও পুরুষ উভয়েরই স্নায়বিক পীড়ায়, উত্তেজনাপ্রবণতা, কোপনতা, অত্যানুভুতি (কেলি ফস)। 
ভয় পাওয়া, ভীতিভাব, উত্তেজনাজনক সংবাদ, আকস্মিক চিত্ত চাঞ্চল্যের কুফল ( ইগ্নে-আনন্দজনক সংবাদ হইতে - কফিয়া)। 

মৃত্যুভয় (আর্স) কিন্তু সাহসের একান্ত অভাব। 

কোন অসাধারণ কার্যে অংশ গ্রহণ করিতে হইবে এরূপ পূর্বানুভূতি হইতে, চার্চ বা থিয়েটারে যাইবার জন্য প্রস্তুত হইতে গেলে, কাহারও সহিত নির্ধারিত ব্যবস্থা অনুসারে সাক্ষাৎ করিতে হইলে উদরাময় দেখা যায়; রঙ্গমঞ্চভীতি, সাধারণের সম্মুখে উপস্থিত হইতে স্নায়বিক ভীতিভাব ( আর্জ নাই)। 


সূর্যের উত্তাপে অথবা গ্রীষ্মকালে সর্বাঙ্গীণ অবসাদ। 

জিহ্বা, হস্তদ্বয়, পদদ্বয় এবং সমস্ত দেহের দূর্বলাতা ও কম্পন। 

রোগী চুপ করিয়া থাকিতে চায়, একাকী থাকিতে চায়, কথা বলিতে চাহে না, চাহে না যে কেহ তাহার নিকটে থাকুক, এমন কি লোকটি যদি নীরব হইয়া থাকে, তাহা হইলেও উহা তাহার পছন্দ হয় না ( ইগ্নে)। 

শিরোঘূর্ণন  মস্তকের পশ্চাৎদিক হইতে প্রসারিত হইতে থাকে। (সাইলি), তৎসহ দ্বিত্বদৃষ্টি, ক্ষীণদৃষ্টি, দৃষ্টিলোপ, চলিতে গেলে মাতালের ন্যায় টলিতে থাকে। 


শিশু পড়িয়া যাইবার ভয়ে শয্যা আঁকড়াইয়া ধরে, অথবা ধাত্রীকে জড়াইয়া ধরে ( বোরাক্স, স্যানিকি)। 

শিরঃপীড়ার পূর্বে দৃষ্টিহীনতা দেখা দেয় (কেলি বাই); প্রচুর মূত্রপাতের পর শিরঃপীড়ার উপশম। 

পেশীসমূহের ক্রিয়াগত সামঞ্জস্যের অভাব; পেশীগুলি পেশীগুলি বিশৃঙ্খল ভাবে সঞ্চালিত হয়, পেশীসমূহ ইচ্ছানুরূপ কার্য করে না। 

শিরঃপীড়া; গ্রীবাদেশীয় মেরুদন্ডে আরম্ভ হইয়া বেদনা মাথার উপরে বিস্তৃত হয়, কপাল ও চক্ষুতে ফাটিয়া যাওয়ার ন্যায় বোধ হয়(স্যাঙ্গুই, সাইলি-এইরূপে আরম্ভ হয় কিন্তু মাথার একটি পাশকে আক্রমন করে)। মানসিক পরিশ্রমে, ধুমপানে, সূর্যের উত্তাপে, মাথা নীচু করিয়া শুইলে বৃদ্ধি। 

চক্ষুর উপর দিয়া মস্তকের চারিদিকে যেন একটি ফিতা বাঁধা রহিয়াছে এরূপ অনুভূতি (কার্ব এসি, সালফ)। মস্তকচর্ম স্পর্শে ক্ষতবৎ বোধ। 

ভয় হয় যেন নড়াচড়ার উপর না থাকিলে হৃৎক্রিয়া বন্ধ হইয়া যাইবে (ভয় হয় যেন নড়িলে হৃৎপিন্ড বন্ধ হইয়া যাইবে-ডিজি)। 
বৃদ্ধ বয়সের ধীরগামী নাড়ী। 

চক্ষুপাতায় অত্যন্ত ভারবোধ; উহা মেলিয়া রাখিতে পারে না ( কষ্টি, গ্রাফাই, সিপিয়া)। 

জ্বরের শীতে পিপাসা থাকে না, শীত শিদাঁড়ার উপর দিয়া, শীত sacram ত্রিকাস্থি হইতে মস্তকের পেছন পর্যন্ত ঢেউয়ের ন্যায় গতিতে পৃষ্ঠের উপর দিয়া উঠানামা করিতে থাকে। 

সম্বন্ধ- টাইফয়েড জ্বরের আশঙ্কায় ব্যাপ্টিশিয়ার সহিত; কুইনাইন আটকান কম্পহীন সবিরাম জ্বরে ইপিকাকের সহিত তুলনীয়। 

উপচয়- আর্দ্র আবহাওয়ায়, ঝড়বৃষ্টির পূর্বে, মানসিক আবেগ অথবা উত্তেজনায়, দুঃসংবাদে, ধুমপান করিলে, নিজের রোগ সম্বন্ধে চিন্তা করিলে, তাহার ক্ষতির কথা অন্যের মুখে শুনিলে। বেলা দশ ঘটিকার সময় বৃদ্ধি। 

উপশম- সম্মুখদিকে ঝুকিলে, প্রচুর পরিমাণ প্রস্রাব নির্গমনে, উম্মুক্ত বাতাসে, ক্রমাগত নড়াচড়ায়, উত্তেজক কিছু ব্যবহারের ফলে। 

ক্রিয়ানাশকঃ চায়না, কফিয়া, ডিজিটালিস।  যে যে ক্ষেত্রে জেলসিমিয়াম ফলপ্রদ হয়, সেই সেই ক্ষেত্রে সুরাসারঘটিত উত্তেজক ঔষধাদিতে উপসর্গসমূহ উপশমিত হয়।

কোন মন্তব্য নেই

Blogger দ্বারা পরিচালিত.